অসহায় শিশু কিশোরদের পাশে ‘শিশু প্রতিভা বিকাশ কেন্দ্র’

কিশোর বাংলা প্রতিবেদন: ২০১৪ সালের ডিসেম্বরে প্রতিষ্ঠা লাভ করে ‘শিশু প্রতিভা বিকাশ কেন্দ্র’। ১১টি সেন্টারে ৭৪০ জন সুবিধাবঞ্চিত অসহায় শিক্ষার্থীকে শিক্ষা সামগ্রী বিতরণ করে আসছে এই সামাজিক সংগঠনটি। আর দুটি সেন্টারে সংস্কৃতি শিক্ষা দেওয়া হচ্ছে। শিগগিরই ৩০টি কম্পিউটার নিয়ে একটি ল্যাব তৈরি করা হবে। সেখানে বিনামূল্যে কম্পিউটার শিক্ষা দেবে সংগঠনটি। নিয়মিত স্বাস্থ্যসেবাও দিচ্ছে সংগঠনটি।
গরীব ও অসহায় শিশুদের প্রাথমিক শিক্ষা নিশ্চিত করতে ‘শিশু প্রতিভা বিকাশ কেন্দ্র’র এই কার্যক্রম। সংগঠনটি অসহায় শিশুকে তাদের পড়ালেখার মান বৃদ্ধি ও ঝরে না পড়ার লক্ষে বিনামূল্যে বাংলা, ইংরেজি ও গণিত বিষয়ে পাইভেট পড়ানো হয়। প্রতিমাসে প্রয়োজনীয় শিক্ষা উপকরণ দেওয়া হয় শিক্ষার্থীদের।
সংগঠনটির উদ্যাক্তা চেয়ারম্যান ডা. সৈয়দ মিজানুর রহমান। তিনি ছাত্রলীগের ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি। কঠোর পরিশ্রম করে সংগঠনের কার্যক্রমকে এগিয়ে নিচ্ছেন তিনি।
রাজনীতির পাশাপাশি সামাজিক এই উদ্যোগ সম্পর্কে জানতে চাইলে সৈয়দ মিজানুর রহমান ঢাকাটাইমসকে জানান, আমি সারাজীবন ছাত্রলীগের রাজনীতির সঙ্গে থাকতে চাই। আর ছাত্রদের মাঝে বঙ্গবন্ধুর বার্তা পৌঁছে দিতে চাই। এ কারণেই আমি এই উদ্যোগ নিয়েছি, যাতে ছোট বেলা থেকেই একজন শিশুর মাঝে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ পৌঁছে দেয়া যায়।