হোম / পড়াশুনা / ময়মনসিংহে ভর্তির সুযোগ বঞ্চিত হচ্ছে শিশুরা
ময়মনসিংহে

ময়মনসিংহে ভর্তির সুযোগ বঞ্চিত হচ্ছে শিশুরা

কিশোর বাংলা প্রতিবেদন: বয়সের ফেরে এবার ময়মনসিংহে নামি সরকারি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে ভর্তির সুযোগ বঞ্চিত হচ্ছেন শিশুরা। ১০ এর অধিক বয়সে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিইসি) পরীক্ষায় কোমলমতি শিক্ষার্থীরা উত্তীর্ণ হলেও শুধুমাত্র ১১ বছর বয়সসীমার বাধ্যবাধকতার কারণে তারা ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির আবেদনই করতে পারছে না।
এ ঘটনায় হতাশায় ভুগছেন প্রায় হাজার খানেক ছোট্ট সোনামণি। শিশুদের ভবিষ্যত নিয়ে চরম উৎকন্ঠায় রয়েছেন তাদের অভিভাবকরাও। বয়সের জটিলতা নিরসনে তারা হন্যে হয়ে ছুটছেন সরকারি নামি বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক ও জেলা প্রশাসনের কর্মকর্তাদের দ্বারে।
ছোট্ট শিশুদের এমন অনিশ্চিত ভবিষ্যতের বিষয়টি মাথায় রেখেই ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের সুযোগ দানে বয়সের বাধ্যবাধকতা শিথিল করার দাবি জানিয়েছেন তারা।
জানা যায়, শিক্ষা নগরী ময়মনসিংহে চলতি বছর প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী (পিইসি) পরীক্ষায় অংশগ্রহণকারী প্রায় হাজার খানেক শিক্ষার্থী ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তির আবেদন করতে গিয়ে হোঁচট খেয়েছেন।
তাদের গলার ফাঁস হয়ে দাঁড়িয়েছে নগরীর নামকরা ময়মনসিংহ জিলা স্কুল, বিদ্যাময়ী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় ও সরকারি ল্যাবরেটরি হাই স্কুলের ভর্তি বিজ্ঞপ্তি।
স্থানীয় অভিভাবকরা জানান, এসব বিজ্ঞপ্তিতে স্পষ্টভাবে উল্লেখ করা হয়েছে, ৬ষ্ঠ শ্রেণিতে ভর্তিচ্চু বেশিরভাগ শিশুদের বয়স ১১+ হতে হবে। নয়তো ভর্তির আবেদনের সুযোগ বঞ্চিত হবেন তারা।

আরও দেখুন

পিইসি

শৈশব রক্ষার্থে পিইসি পরীক্ষা বাতিলের দাবি

কিশোর বাংলা প্রতিবেদন: গোড়া থেকে প্রশ্নফাঁস রোধকল্পে ও শৈশব ধ্বংসকারী হিসেবে প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষাকে …