হোম / ফিচার / ইয়েমেনে শিশু হত্যায় জাতিসংঘের কালো তালিকায় সৌদি আরব
কালো

ইয়েমেনে শিশু হত্যায় জাতিসংঘের কালো তালিকায় সৌদি আরব

কিশোর বাংলা প্রতিবেদনইয়েমেনের গৃহযুদ্ধে উল্লেখযোগ্যসংখ্যক শিশু হতাহত হওয়ার ঘটনায় সৌদি আরবসহ বিবদমান পক্ষগুলোকে কালো তালিকাভুক্ত করেছে জাতিসংঘ।

২০১৪ সালে ইয়েমেনের রাজধানী সানা দখল করে সেদেশের প্রেসিডেন্ট আব্দরাব্বু মানসুর হাদীকে ক্ষমতাচ্যুত করে হুথি বিদ্রোহীরা। এ ঘটনায় ২০১৫ সালে মানসুর হাদী সমর্থিত ইয়েমেনের সরকারি বাহিনীর পক্ষে সেনা প্রেরণ করে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোট।

দুই পক্ষের সংঘাতে ইয়েমেনে ২০১৬ সালে ৫০২ জন শিশু নিহত এবং ৮৩৮ জন আহত হওয়ার বিষয়টি নিশ্চিত করেছে জাতিসংঘ।

নিরাপত্তা পরিষদে পেশকৃত বার্ষিক প্রতিবেদনে জাতিসংঘ জানায়, ২০১৬ সালে স্কুল ও হাসপাতাল লক্ষ্য করে সৌদি নেতৃত্বাধীন জোটের ৩৮টি পৃথক হামলার হতাহত হয়েছে ৬৮৩ জন শিশু।

একই সঙ্গে জাতিসংঘ সৌদি জোটের বিরুদ্ধে লড়াইরত হুথি বিদ্রোহীদেরও শিশু হত্যার দায়ে কালো তালিকাভুক্ত করেছে। তাদের বিরুদ্ধেও ৪১৪ জন শিশুকে হতাহত করার অভিযোগ উঠেছে।

একই সঙ্গে এই তালিকায় ভুক্ত হয়েছে ইয়েমেনের সরকারি বাহিনী, সরকার সমর্থক মিলিশিয়া এবং জঙ্গি সংগঠন আল কায়েদা ইন অ্যারাবিয়ান পেনিনসুলা।

জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্টোনিও গুতিরেস এই সংক্রান্ত একটি রিপোর্ট গত বৃহস্পতিবার নিরাপত্তা পরিষদে জমা দিয়েছেন বলে জানিয়েছে আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম।

সিরিয়ার গৃহযুদ্ধে এ পর্যন্ত দশ হাজারেরও বেশি মানুষ নিহত হওয়ার পাশাপাশি বাস্তুচ্যুত হয়েছে ৩০ লাখেরও বেশি মানুষ। এ ছাড়া এ মুহূর্তে ইয়েমেনের ১ কোটি ৭০ লাখ তীব্র খাদ্য সঙ্কটের মুখে বলে জানিয়েছে জাতিসংঘ।

আরও দেখুন

শরণার্থী

কৃত্রিম পা পেল সিরীয় সেই শরণার্থী শিশু

কিশোর বাংলা প্রতিবেদন: মায়া মেরহি নামে সিরীয় আট বছর বয়সী শরণার্থী শিশুটির টিনের কৌটা লাগানো …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *