চলচ্চিত্র
কিশোর বাংলা প্রতিবেদন: ফ্রেমে ফ্রেমে আগামীর স্বপ্ন –  স্লোগান নিয়ে ফের শুরু হতে যাচ্ছে ১১তম আন্তর্জাতিক শিশু চলচ্চিত্র উৎসব। আগামী ২৭ জানুয়ারি থেকে শুরু হচ্ছে শিশুচলচ্চিত্র নিয়ে দেশের সর্ববৃহৎ আয়োজন আন্তর্জাতিক শিশু চলচ্চিত্র উৎসব। সপ্তাহব্যাপী উৎসবটি চলবে ২ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত। বর্তমানে আয়োজন প্রস্তুতি চলছে পুরোদমে।
এরই মধ্যে বাংলাদেশ ছাড়াও বিশ্বের বিভিন্ন দেশ থেকে প্রায় ১হাজার চলচ্চিত্র জমা পড়েছে। বর্তমানে চলছে চলচ্চিত্রগুলোর বাছাই প্রক্রিয়া। এবার ২০০টি প্রদর্শনের লক্ষ্য হাতে নিয়েছে আয়োজক সংগঠন চিলড্রেন ফিল্ম সোসাইটি।
উৎসব পরিচালক আবিদ ফেরদৌস মুখর বললেন, জানুয়ারিতে সপ্তাহব্যাপী উৎসবটি করার পর আমরা ঢাকার বাইরে উৎসব করবো। এবার বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে চলচ্চিত্র জমা দেওয়ার শেষ তারিখ ছিল ৩০ নভেম্বর পর্যন্ত। আমরা বেশ সাড়া পেয়েছি। স্যোশাল ক্যাটাগরিতে এবার আমরা চলচ্চিত্রের বিষয় নির্ধারণ করেছি ‘নারীর প্রতি সংহিসতা’।”
উৎসবের মূল ভ্যানু নির্ধারিত হয়েছে পাবলিক লাইব্রেরির শওকত ওসমান মিলনায়তন। এছাড়াও ব্রিটিশ কাউন্সিল, গ্যেটে ইনস্টিটিউট, অলিয়ঁস ফ্রঁসেজ, বাংলাদেশ শিল্পকলা একাডেমি ও ড্যাফোডিল স্কুলে প্রদর্শিত হবে চলচ্চিত্রগুলো।
শিল্পের শক্তিশালী মাধ্যম চলচ্চিত্রকে শিশুদের শিক্ষা ও বিনোদনের অন্যতম অনুষঙ্গ হিসেবে গড়ে তুলতে ২০০৬ সালের ১৭ অগাস্ট প্রতিষ্ঠিত হয় চিলড্রেন ফিল্ম সোসাইটিজ বাংলাদেশ। সংগঠনটির উদ্যোগে প্রতিবছর শিশু চলচ্চিত্রের এ মিলনমেলা বসে।